শিরোনাম :
যশোরের শার্শায় যৌতুকের টাকা দাবীকে কেন্দ্র করে জামাইয়ের হাতে শ্বশুর খুন বেনাপোল দিয়ে ৩ বছর পর ২০ বাংলাদেশি কিশোর-কিশোরী ভারত থেকে দেশে ফেরত। র‌্যাবের অভিযানে ৬৭ বোতল ফেন্সিডিলসহ দুইজন আটক বিএনপি’র কোন নেতার সম্পৃক্ততা থাকতে পারে না আওয়ামী লীগের কমিটিতে – পূজামন্ডপ পরিদর্শনে এমপি হোসনে আরা বিলুপ্ত প্রায় তাঁত শিল্প নবাগত ইউএনওকে ইসলামপুরে বরণ কালকিনিতে তৌহিদী জনতার সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ, তদন্ত ওসিসহ আহত-৪ আ’লীগের দলীয় মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী জয়পুরহাটে দুই ইউপিতে পরির্বতন মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে পলাশবাড়ীতে মানববন্ধন মধুপুরে ব্রীজ থেকে এক ভ্যান চালকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

তরমুজ চাষে সফল কৃষক মাসুদ

রিপোর্টিং,মধুপুর(টাংগাইল)প্রতিনিধি : মধুপুর বনাঞ্চলে আনারসের পাশাপাশি বারোমাসি তরমুজ চাষ শুরু হয়েছে। মাসুদ হাসান নামের সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত একজন সদস্য বনাঞ্চলে ২১০ শতাংশ জমিতে এই নতুন প্রজাতির তরমুজ চাষাবাদ করছেন। এতে ভাল ফলন হওয়ায় বেশি লাভের আশা করছেন তিনি।

সরেজমিনে মধুপুর উপজেলার পীরগাছা রাবান বাগান সংলগ্ন ভবানীটেকি গ্রামে গিয়ে দেখা গেছে, ভবানীটেকি গ্রামের সেনাবাহিনী থেকে অবসরপ্রাপ্ত সদস্য মাসুদ হাসান তার ২১০ শতাংশ জমিতে লেন ফিই এফ১ জাতের তরমুজ রোপন করেছেন। প্রায় দেড়মাস আগে রোপন করা প্রতিটি গাছে তিন-চারটা করে তরমুজ ঝুলছে। এরমধ্যে কোনটা এক কেজি, কোনটা কেজি, কোনটা আবার আধা কেজি ওজন হয়েছে। কয়েকটি খন্ডে ভাগ করে আগে পরে ২১০ শতাংশ জমিতে শুধু তরমুজের চাষ করেছেন তিনি। বারোমাসি এই তরমুজের ভিতর অংশ হলুদ কালার। তরমুজ পরিপক্ক হয়ে বিক্রি উপযোগী হতে সময় লাগে ৫৫দিন থেকে ৬০দিন। বর্তমানে বাজারে তরমুজ ৭০-৮০ টাকা দরে বিক্রি করা হচ্ছে।

জানা গেছে, উপজেলার ভবানীটেকি গ্রামে ২১০ শতাংশ জমিতে চাষী মাসুদ হাসান নতুন প্রজাতির লেন ফিই এফ১ জাতের তরমুজ আবাদ করেছেন। এতে প্রতি শতাংশ জমিতে তরমুজ চাষে শ্রমিক মুজুরিসহ খরচ হয়েছে আড়াই হাজার টাকা। তবে প্রথম ফলনের পর দ্বিতীয় বার প্রতি শতাংশ জমিতে খরচ হবে এক হাজার টাকা। এতে মোট জমিতে তরমুজ আবাদ করতে প্রথমবার ৫লাখ টাকা খরচ হয়েছে। চাষ করা জমির তরমুজ বিক্রি হবে সর্বনিম্ন ১২ থেকে ১৩ লাখ টাকা। আর শতাংশ হিসেবে প্রতি শতাংশ তরমুজ চাষে লাভ হবে সাড়ে ৩ হাজার থেকে সাড়ে ৪ হাজার টাকা। তরমুজ বীজ থেকে শুরু করে দুই মাসের মধ্যে তরমুজ বিক্রির উপযোগী হয়। ফলে দুই মাস পর পর তরমুজ চাষ শেষে বিক্রি করা যাবে। এতে দুই মাস চাষ শেষে তরমুজ বিক্রি করে কমপক্ষে ৬ লাখ থেকে ৭ লাখ টাকা উপার্জনের আশা করছেন চাষী মাসুদ হাসান। এই জাতের তরমুজের ওজন হবে সাড়ে কেজি থেকে ৪ কেজি ওজন।

এদিকে নতুন জাতের মাসুদের এই তরমুজ চাষ দেখে গ্রামের অনেকেই তরমুজ চাষে উদ্বুদ্ধ হচ্ছে। অনেকেই তার তরমুজ বাগান দেখতে আসছে।

তরমুজ বাগানে কাজ করা শ্রমিক আবু বক্কর সিদ্দিক বলেন, ৮ বিঘার মত তরমুজ বাগানে ১২জন শ্রমিক কাজ করছি। নতুন জাতের এই তরমুজ মধুপুর বনাঞ্চলে প্রথম চাষ শুরু হয়েছে। এতে ফলনও ভাল হয়েছে। বর্তমানে তরমুজ বিক্রির উপযোগী হয়েছে।

তরমুজ চাষী মাসুদ হাসান বলেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী থেকে অবসরে আসার পর নিজস্ব জমিতে কলা, আদা ও পেঁপেঁ চাষ শুরু করি। এরমধ্যে বিভিন্ন ও বেশি লাভজনক ফসল আবাদ করতে তরমুজ চাষকে বেছে নেই। এজন্য ইউটিউবে সার্চ দিয়ে বনাঞ্চলে তরমুজ চাষ কিভাবে হবে এবং নতুন পদ্ধতিতে কিভাবে করা যাবে সেটা দেখি। পরে বারোমাসি এই তরমুজের বীজের খোঁজ পাই। পরে লাল তীর সীড লিমিটেডের বীজ নেয়ার আগে ওই কোম্পানীর লোকজন প্রথমে জমি পরিদর্শণ করে। পরে জমি পরীক্ষা করে তরমুজ চাষ করার উপযোগী ঘোষণা করলে ২১০ শতাংশ জমিতে বারোমাসি এই তরমুজ চাষ শুরু করি।

চারা উৎপাদন থেকে শুরু করে তরমুজ বিক্রি উপযোগী হতে দুই মাস সময় লাগে। অসময়ে তরমুজের চাহিদার পাশাপাশি দামও ভাল পাওয়া যাবে। ইতোমধ্যে পাইকাররা দরদাম শুরু করেছে। আশা করা যায় প্রথম চাষেই ৬লাখ থেকে ৭ লাখ টাকা উপার্জন করতে পারবো।

মধুপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. নজরুল ইসলাম বলেন মধুপুর বনাঞ্চলে অন্যান্য আবাদের পাশাপাশি কয়েক গ্রামে তরমুজের চাষ শুরু হয়েছে। কৃষকদের চাষাবাদে সব ধরনের সহযোগিতা করা হয়।

চ্যানেল বাংলা লাইভ টিভি

নতুন রুপে নিয়োগপত্র

A House of M.R.Multi-Media Ltd
Design & Development By ThemesBazar.Com